Class 5 Bengali Model Activity Task Full Marks 50

Class 5 Bengali Model Activity Task Full Marks 50

পঞ্চম শ্রেণী বাংলা

Class 5 Bengali Model Activity Task Full Marks 50

১. একটি বাক্যে উত্তর দাও :

১.১ ‘আয়রে ছুটে ছােট্টরা’– ছােটোদের কেন ছুটে আসতে হবে? 

উত্তর:  শীতের ভোরে গল্পবুড়োর কাছ থেকে নানাধরণের রূপকথার গল্প শোনার জন্য ছোটদের ছুটে আসতে হবে।

১.২ . আমাদের জোয়ানদের একটা ঘাঁটি ছিল।’—জোয়ানদের ঘাঁটিটি কোথায় ছিল ? 

উত্তর: লাডাকের বরফে ঢাকা একটি নির্জন স্থানে জোয়ানদের ঘাঁটিটি ছিল।

১.৩ ‘দারােগাবাবু এবং হাবু’ কবিতায় মেজদার পােষ্য কারা? 

উত্তর:  ‘দারােগাবাবু এবং হাবু’ কবিতায় মেজদার আটটি কুকুর পোষ্য ছিল।

১.৪ ‘উলগুলান’ কাদের লড়াই? 

উত্তর:  ‘উলগুলান’ বা বিদ্রোহ ছিল ইংরেজদের বিরুদ্ধে আদিবাসী মানুষদের লড়াই I

১.৫ ‘কেউ করে না মানা। – কার কোন্ কাজে কেউ নিষেধ করে না? 

উত্তর: আকাশের জুড়ে মেঘ ভেসে বেড়ায় আর নানা দেশে ঘুরে বেড়িয়ে ছায়া ও বৃষ্টির খেলা দেখায়। তাদের এইভাবে যেখানে সেখানে ঘুরে বেড়িয়ে খেলা করতে কোন বাধা নেই, কেউ তাদের নিষেধ করে না।

১.৬ এবার আমাকে গােড়ার দিক দিতে হবে। – কী চাষের সময় কুমির একথা বলেছিল ? 

উত্তর : উপেন্দ্রকিশোর রায় চৌধুরীর লেখা ‘বোকা কুমিরের কথা’ গল্পে কুমির ধান চাষের সময় একথা বলেছিল। কারণ, সে ভেবেছিল আলুর মতো ধানও বুঝি মাটির নীচেই ফলে।

☛ সমস্ত বিষয়ের উত্তর পেতে: Click Here

১.৭ মাঠ মানে কী অথই খুশির অগাধ লুটোপুটি ! – ‘অথই’ এবং ‘অগাধ’ শব্দ দুটির অর্থ লেখাে। 

উত্তর :- অথই’ শব্দটির অর্থ হল যার তল নেই এমন গভীর এবং অগাধ’ শব্দটির অর্থ হল প্রচুর বা অনন্ত।

১.৮ ‘ঝড়’ কবিতায় উল্লিখিত দুটি গাছের নাম লেখাে। 

উত্তর:  ‘ঝড়’ কবিতায় উল্লিখিত দুটি গাছের নাম হল- বকুল ও চাঁপা গাছ ।

১.৯ ‘ট্যাক’ শব্দের অর্থ কী?
উত্তর :- ট্যাক্’ শব্দের অর্থ হল ত্রিভুজ আঁকারের জমির মাথা। সাধারণত দুটো নদীর মিলন স্থলে এই রকম ভূমিরূপ সৃষ্টি হয়।

১.১০ ‘করুণা করি বাঁচাও মােরে এসে’ – কখন ফণীমনসা একথা বলেছে? 

উত্তর :- “ফণীমনসা ও বনের পরি” নামক নাটকে প্রথমবার যখন ডাকাতরা ফণীমনসার সোনার পাতাগুলো ছিঁড়ে নিয়ে যায়, দ্বিতীয়বার ভয়ানক ঝড়ে তার কাঁচের পাতাগুলো ধাক্কা খেয়ে গুড়ো গুড়ো হয়ে চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে, আর তৃতীয়বার যখন ছাগল এসে তার কচি কচি পাতাগুলো খেয়ে ফেলে, তখন ফণীমনসা একথা বলেছিল।

২. নিজের ভাষায় উত্তর দাও :

২.১ ‘গল্পবুড়াে’ কবিতায় রূপকথার কোন্ কোন্ প্রসঙ্গ উল্লিখিত হয়েছে? 

উত্তর:  কবি সুনির্মল বসুর লেখা গল্পবুড়ো কবিতাটিতে রূপকথার দৈত্য – দানব, রাজপুত্র, পক্ষীরাজ, হীরে – মানিক, ঝলমলে সোনার কাঠি, তেপান্তরের মাঠ, কেশবতী নন্দিনীর প্রসঙ্গ উল্লিখিত হয়েছে ।

২.২ এমনি করে সারা শীত দেখতে দেখতে কেটে গেল।’—জোয়ানদের সেই শীতকাল যাপনের কথা কীভাবে বুনােহাঁস’ গল্পে ফুটে উঠেছে? 

উত্তর:  জোয়ানদের ঘাঁটিটি ছিল ‎লাদাখের বরফে ঢাকা একটি নির্জন স্থানে । ‘বুনোহাঁস’ গল্পটিতে একটি ডানাতে চোট পাওয়া বুনোহাঁস ও তার একটি সাথী ঘটনাক্রমে আশ্রয় পেয়েছিল জোয়ানদের মুরগি রাখার খালি ঘরে । খুব আনন্দের সঙ্গেই জোয়ানরা ওদের দেখাশোনা করতো। তাদের যত্নে ধীরে ধীরে হাঁসটি সুস্থ হয়ে উঠতে থাকে । এভাবেই জোয়ানরা নিজেদের কাজ ও বুনোহাঁস দুটির দেখাশোনা করতে করতে সারাটা শীতকাল কাটিয়ে দিয়েছিল ।

২.৩ ‘নালিশ আমার মন দিয়ে খুব/ শুনুন বড়ােবাবু।—থানায় বড়ােবাবুর কাছে হাবু কী কী নালিশ জানিয়েছিল ? 

উত্তর:  হাবু থানাতে গিয়ে বড়বাবুকে বলেছিল তারা চার ভাই একসঙ্গে একটি ঘরের মধ্যে বাস করে । কিন্তু সেই ঘরের মধ্যেই বড়দা সাতটা বিড়াল, মেজদা আটটা কুকুর , সেজদা দশটা ছাগল পোষে । সেসবের গন্ধে তার প্রাণ যায় যায় অবস্থা । দাদাদের এই কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে হাবু থানাতে গিয়ে বড়বাবুর কাছে নালিশ জানিয়েছিল ।

২.৪ ‘এতােয়াকে দেখলে মনে হয় দুরন্ত এক বাচ্চা ঘােড়া।– উদ্ধৃতিটির আলােকে এতােয়ার কাজকর্মের পরিচয় দাও। 

উত্তর:  এতোয়া দশ বছরের একটি ছোট্ট দুরন্ত আদিবাসী ছেলে। সে গরু, মোষ চরায় । বাবুদের গরু, মোষ চরাতে চরাতে সে টোকো আম, শুকনো কাঠ, মেটে আলু, পুকুরের পাড় থেকে শাক প্রভৃতি সংগ্রহ করে । আবার কখনো সুবর্ণরেখার সরু চরে বাঁশে বোনা জাল পেতে মাছ ধরে । এই হল এতোয়ার কাজকর্মের পরিচয় ।

২.৫ ‘বিমলার অভিমান’ কবিতা অনুসরণে বিমলার অভিমানের কারণ বিশ্লেষণ করাে। 

উত্তর:  নবকৃষ্ণ ভট্টাচার্যের লেখা ‘বিমলার অভিমান’ কবিতাটিতে বিমলার অভিমানের কারণ হল সারা দিন বাড়ির নানা কাজ, নানা প্রয়োজনে বিমলার ডাক পড়লেও খাওয়ার সময় তাকে কেউ ডাকে না, যেন সবাই তার কথা ভুলে যায়। এমনকি খাবারও দাদা ও ভাইয়ের থেকে তাকে অল্প দেওয়া হয় । তাই বিমলার অভিমান হয়েছে ।

☛ সমস্ত বিষয়ের উত্তর পেতে: Click Here

২.৬ ছাদটা ছিল আমার কোতাবে- পড়া মরুভূমি…’—‘ছেলেবেলা’ রচনাংশে ছাদের প্রসঙ্গটি লেখক কীভাবে স্মরণ করেছেন? 

উত্তর:  রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘ছেলেবেলা’ রচনাংশে – আমরা দেখতে পাই ছোট্ট রবি ঠাকুরের জীবনে তাদের বাড়ির ছাদটি ছিল এক বিশেষ আনন্দের জায়গা । লেখক ছাদ থেকে নিচের প্রকৃতি, মানুষদের কাজকর্ম লক্ষ্য করতেন এবং ছাদের চারিদিকের ধূ-ধূ শূন্যতা , হু-হু গরম বাতাসের ধুলো উড়ানো- এসব স্মরনের কারণেই রচনাংশটিতে ছাদের প্রসঙ্গ এসেছে ।

২.৭ তারি সঙ্গে মনে পড়ে ছেলেবেলার গান’– কেমন দিনে কথকের ছেলেবেলার কোন্ গানটি মনে পড়ে? 

উত্তর: দিনের আলো নিভে এসেছে। সূর্য ডুবতে চলেছে। চাঁদকে ঘিরে আকাশে মেঘ জমেছে। নানা রঙের মেঘ। মন্দিরে কাঁসর-ঘন্টা বাজছে। নদীর ওপারে বৃষ্টি নেমেছে, গাছপালা সব ঝাপসা লাগছে। এপারেতে বিদ্যুতের আলোয় মেঘের মাথায় একশো মানিক জ্বলছে। বাদলা হাওয়ার এই রকম দিনে কথকের মনে পড়েছে ছেলেবেলার গান — ‘বৃষ্টি পড়ে টাপুর টুপুর নদেয় এল বান।’

২.৮ ‘ব্যাঙ স্বেচ্ছায় বৃষ্টি আনার কাজে যুক্ত বলাে। – বৃষ্টি আনার কাজে যুক্ত হয়ে ব্যাঙ কী করেছিল? 

উত্তর :পৃথিবীতে খরা হওয়ার ফলে মানুষ, পশুপাখি, গাছপালা ধ্বংসের মুখোমুখি হয়েছিল। তখন ব্যাঙ স্বেচ্ছায় বৃষ্টি আনার কাজে যুক্ত হয়ে যাত্রা শুরু করেছিল ভগবানের উদ্দেশ্যে। সেখানে গিয়ে তাদের সমস্যাগুলি জানিয়ে সমাধান পাওয়াই ছিল তার উদ্দেশ্য। সেখানে গিয়ে তারা দেখে সবাই নানান ভোজ ও আনন্দ-উৎসবে ব্যস্ত। তখন রাগে উত্তেজিত হয়ে ভগবানের কাছে গেলে ভগবান রক্ষীদের ডাকে। এরপর মৌমাছি-মোরগ-বাঘ রক্ষীদের আক্রমণের ভয় দেখায়। শেষ পর্যন্ত ব্যাঙ,মোরগ ও বাঘেদের জয় হয়েছিল। তাদের জয়ের জন্য গর্বিত ব্যাঙ তখনই উল্লসিত হয়ে সরবে পুকুরে ফিরে গেল। তারপর থেকে যখনই ব্যাঙ ডাকে, তখনই বৃষ্টি নামে।

☛ সমস্ত বিষয়ের উত্তর পেতে: Click Here

২.৯ ‘ভেবে পাই নে নিজে’ – কবি কী ভেবে পান না? 

উত্তর :- কবি অশোকবিজয় রাহা ‘মায়াতরু’ কবিতায় এক মায়াবী গাছের কথা বলেছেন। কবি বলেছেন– যে গাছ সন্ধ্যে হলে ভূতের মতো নাচতো, আবার যখন চাঁদ উঠত তখন চাঁদের আলোয় ঝাকড়া গাছটিকে দেখে মনে হত ভাল্লুক। বৃষ্টির শেষে চাঁদ উঠলে সেই ভালুক বা গাছের বদলে লক্ষ হিরার মাছ দেখা যেত। ভোরের আবছায়াতে সেই গাছটিকে ঘিরে নানা আজব কান্ড ঘটত-কবি সেগুলিই ভেবে পান না।

২.১০ ‘ফণীমনসা ও বনের পরি’ নাটকে সূত্রধারের ভূমিকা আলােচনা করাে। 

উত্তর :- সূত্রধার শব্দটির অর্থ হলো নাটকের প্রস্তাবক। ‘ফনিমনসা ও বনের পরী’ নাটকে সূত্রধার এর ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। সূত্রধার বিভিন্ন চরিত্রের সংলাপের মাঝে ঘটনার বিস্তারিত বিবরণ দেওয়ার মাধ্যমে গল্পের ধারা বজায় রেখেছে। যেমন ডাকাতদলের আগমন, ফণীমনসার পাতা ছিঁড়ে নেওয়া, কাঁচের পাতায় সেজে ওঠা ফণীমনসাকে কেমন লাগছিল দেখতে তার বর্ণনা , ঝড়ে কাঁচের পাতা ভেঙ্গে যাওয়া, ছাগলে ফণীমনসার কচি পাতা খেয়ে ফেলা এসব ঘটনার যোগসূত্র সূত্রধার ঘটিয়েছেন।

৩. নির্দেশ অনুসারে নীচের প্রশ্নগুলির উত্তর দাও :  

৩.১ সন্ধি করাে :

৩.১.১ মিশি + কালাে 

উত্তর: মিশি + কালাে = মিশকালো । 

৩.১.২ এত + দিন

উত্তর: এত + দিন = এদ্দিন ।

৩.১.৩ বড়াে + ঠাকুর 

উত্তর: বড়াে + ঠাকুর = বট্ ঠাকুর

৩.১.৪ সৎ + গ্রন্থ 

উত্তর: সৎ + গ্রন্থ = সদগ্রন্থ

৩.১.৫ দিক্ + নির্ণয়

উত্তর: দিক্ + নির্ণয় = দিঙনির্নয়

৩.২ নীচের পদগুলি ব্যঞ্জন সন্ধির কোন্ কোন্ নিয়ম মেনে বদ্ধ হয়েছে, লেখাে :

৩.২.১ প্রচ্ছদ 

উত্তর: প্রচ্ছদ = প্র + ছদ ( অ + ছ যুক্ত হয়ে অচ্ছ ) । 

৩.২.২ প্রাগৈতিহাসিক 

উত্তর: প্রাগৈতিহাসিক = প্রাক + ঐতিহাসিক ( ক + অ = গ )

৩.২.৩ সদিচ্ছা 

উত্তর: সদিচ্ছা = সৎ + ইচ্ছা ( ত + ই = দি )

৩.২.৪ বিদ্যুদবেগ

উত্তর: বিদ্যুদবেগ = বিদ্যুৎ + বেগ ( ত + ব = দ্ )

৩.২.৫ পদ্ধতি

উত্তর: পদ্ধতি = পদ + হতি ( দ + হ = দ্ধ )

☛ সমস্ত বিষয়ের উত্তর পেতে: Click Here

1. You may also like: Class 6 Model Activity Task 2021 All Subjects

2. You may also like: কীভাবে ‘Student Credit Card’ এর জন্য আবেদন করতে হবে।

Class 5 Model Activity Task Bengali Full Marks 50

Official Website: Click Here

Class 5 Bengali Model Activity Task 2021 Part- 8

Leave a Comment

CLOSE